বসন্তের কবিতা

বসন্তের কবিতাঃ আপনাদের জন্য নিয়ে এলেমা ঋতুরাজ বসন্তের কবিতা । ফালগুন ও চৈত্র মাস মিলে হয় ঋতুরাজ বসন্ত। আশা করছি আপনাদের কাছে অনেক ভালো লাগবে বসন্তের কবিতা গুলো।                                                                                             আরো পড়ুন >>> ফালগুনের এসএমএস

বসন্তের কবিতা

 বসন্ত এসে গেল

বুকে নিয়ে শিমুল , পলাশ আর কৃষ্নো চূড়া
বুকে এতো রক্তিম লাল ছিল বলেই বুঝি-
একুশ স্বাধিনতা বসন্তের অর্জন !!

আমি ফালগুনের বার্তা বাহক –
কারন জন্ম আমার জারুল ফোটার কালে ,
বসন্তের ঝাঁপি খুলে –

আসুক পুষ্প – প্লাবন,
সবার অন্তরে প্রাণে।

বসন্তের শুভেচ্ছা কবিতা

বসন্তের কবিতা – হলদে , বাসন্তী

হলদে, বাসন্তী লাল আর কমলা
শাড়ী নিয়ে মাতেয়াড়া, তরুণী-চপলা ।
হাত ভরে চুড়ি বাজে-রুনঝুন, রিনিঝিনি
মাটির গয়না-গাটি , জম্পেশ বিকি-কিনি ।

এক পায়ে মল আর গোল টিপ কপালে
সাজু গজু শুরু হয় সেই ভোর-সকালে ।
পান্জাবী,ফতুয়া-দুটোই যে চলছে
ছেলে গুলো হিমু হবে- সকলেই বলছে ।

সাথের জিন্সটা হলো কালচারে ফিউশন
মন্দ কি ভাবছে যে স্মার্ট জেনারেশন ।

ভাপা পিঠা , মোয়া-নাডু আর পাটিসাপটা
সাথে ফ্রি একদম হইচই, আড্ডা ।
প্রকৃতিতে প্রাণ জাগে, ফুলে ফুলে আগুন
শীত গেল চলে, আজ পহেলা ফাগুন ।

বসন্তের কবিতা সমগ্র

ফালগুন আসবেই এ দেশে

তুমি ভালো থাকো আর না থাকো
ফালগুন আসবেই এ দেশে ।
ফুল যদি ঝরে যায় , নদী যদি মরে যায়
ফালগুন আসবেই এই দেশে ।

আলো যদি নিভে যায় , আধিঁ যদি ছেয়ে যায়
ফালগুন আসবেই এই দেশে।
তুমি যদি না-ও চাও , তিল-তিসি না-ও দাও
ফালগুন আসবেই এই দেশে।

তুমি বেঁচে থাকো আর না থাকো
ফালগুন আসবেই এ দেশে ।
রঙ যদি মুছে যায়, স্বপ্নেরা ঘুচে যায়
ফালগুন আসবেই এ দেশে ।

যদি সুর উবে যায় চাঁদ-তারা ডুবে যায়
ফালগুন আসবেই এ দেশে।
হয়তো সে হাসবে না, আর ভালবাসবে না
হয়তো আসবে কেঁদে কেঁদে সে ।

বসন্তের কবিতা

কেউ বলে ফালগুন , কেউ বলে পলাশের মাস

কেউ বলে ফালগুন , কেউ বলে পলাশের মাস,
আমি বলি আমার নতুন প্রভাত ।
কেউ বলে দখিনা , কেউ বলে মাতাল বাতাস
আমি বলি আমার দীর্ঘশ্বাস ।

কেউ বলে নদী কেউ তটিনী কেউ নাম দিয়েছে
নাম তরঙ্গিনী –
আমিতো তারে কোন নামে ডাকিনি – সে যে
আমার চোখের সৌন্দর্য্যদের আবাস ।

জোনাকির নাম নাকি আধাঁর মানিক , আমি তো
দেখি আগুন জ্বলে ধিকি ধিক-
খর বৈশাখে প্রথম যেদিন মেঘের মিচিলে মেঘের মিছিলে ঐ

আকাশ রঙিন…..
তৃষিত রিদয়ে বাজে আনন্দ বীণ্ আমি শুনি
ঝড়ের র্পূবাভাস !!!

ঝরা পাতার বৃক্ষ

ও ঝরা পাতার বৃক্ষ ডালে ডালে
অঙ্কূরিত ইচ্ছা ডানায় রসে বসে
ও লাগল রে লাগল রে লাগল
বসন্ত ফাল্গুনের পূর্বশশীর হাওয়া !!

পাগলাপারা উম্মাদনা স্পর্শ চাওয়া
স্নিগ্ধ সৌরভে মুখরিত হৃদয় ছুঁয়া
দেখিরে ফাল্গুনের পূর্বশশীর হাওয়া !!””
পুষ্পিত কল্লোল হবে কি গো পাওয়া
নাকি বিষন্ন লগ্নে উড়ন্ত ধূসর কালো
সাদৃশ্য অপ্রেমের হবে ধু ধু ধোঁয়া !!””

দেখো গো চঞ্চলা পূর্বশশীর হাওয়া
সবুজ শ্যামল সোনালী রঙের মত
বয়ে চলা লজ্জাপতির মত ভালোবাসা !!””

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

x
error: Content is protected !!