ভাবসম্প্রসারণ – স্বদেশের উপকারে নাই যার মন,কে বলে মানুষ তারে ? পশু সে জন।

ভাবসম্প্রসারণঃ স্বদেশের উপকারে নাই যার মন,কে বলে মানুষ তারে ? পশু সে জন।

মূলভাবঃ দেশপ্রেম মানবজীবনের মহান বৈশিষ্ট্য । স্বদেশ ও স্বজাতির উপকার সাধনে যে দ্বিধাগ্রস্থ তাকে কখনোই মানুষ হিসেবে গণ্য করা যায় না ।

সম্প্রসারিত-ভাবঃ মানুষের অন্যতম মানবীয় গুণ দেশপ্রেম। দেশকে ভালোবাসা এবং দেশ ও জাতির কল্যাণে নিজেকে উৎসর্গ করা প্রত্যেকটি দেশ প্রেমিক নাগরিকের কর্তব্য। অর্থ-সম্পদ বংশগত আভিজাত্য ও পদমর্যাদার মাপকাঠিতে মনুষ্যত্ব নির্ণীত হয় না। মানুষ ধনবান হতে পারে, রুপবান হতে পারে, বিশাল ক্ষমতার অধিকারী হতে পারে কিন্তুূ তার মধ্যে যদি দেশপ্রেম না থাকে তো সে মানষ নামের অযোগ্য বলে বিবেচিত হবে । এই ধরনের স্বার্থপর ও আত্মকেন্দ্রিক মানুষ আর পশুর মধ্যে মূলত কোন পার্থক্য নেই ।

পশুর মধ্যে যেমন নীতিজ্ঞান নেই দেশ বা জাতির প্রতি কোন মমত্ববোধ নেই, ন্যায়-অন্যায় বিচারবোধ নেই তেমনি যার মধ্যে স্বদেশ বা স্বজাতির প্রতি কোন ভালবাসা নেই সে মানুষ নামের অযোগ্য মানুষ । প্রতিটা মানুষের মধ্যে দেশ প্রেম থাকা উচিত । যার মধ্যে দেশ প্রেম নাই আমরা তাকে পশুর সাথে গন্য করি । দেশ প্রেম অনেক বড় মহোৎ গুণ । দেশ প্রেম মানুষকে দেশের প্রতি আন্তরিকতা ও ভালবাসার প্রকাশ করা বুঝায়। দেশের প্রতি সব সময় সম্মান ও শ্রর্দার নজরে দেখা আমাদের সবার কাম্য ।

মন্তব্যঃ প্রতিটাদেশের মানুষের মধ্যে যেমন দেশ প্রেম আছে তেমনি আমাদের দেশের মানুষের মধ্যে দেশ প্রেম রয়েছে এবং সেইটা থাকার ধরকার। দেশ প্রেমের গুরুত্ব ও প্রয়োজনীয়তা অপরিসীম ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!